ইরানের বিমান বিধ্বস্ত, নিহত ৬৬

[ad_1]

ইরানের তৃতীয় বৃহত্তম বেসরকারি বিমান সংস্থা অসিম্যান এয়ারলাইন্সের একটি বিমান উড্ডয়নের পরপরই বিধ্বস্ত হয়েছে।  ইরানের রাঝধানী তেহরান থেকে ইয়াসুগ শহরে যাওয়ার পথে বিমানটির সঙ্গে রাডারের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়।

বিমানটির আরোহী সংখ্যা নিয়ে ভিন্ন ধরনের তথ্য দেয়া হচ্ছে দেশটির সংবাদমাধ্যমে। প্রেস টিভি বলছে, বিমানটিতে ৬৬ জন আরোহী ছিলেন। বিমানের আরোহীদের কেউ বেঁচে নেই ।

 

তবে ইরানের অন্যান্য সংবাদমাধ্যম জানাচ্ছে, অভ্যন্তরীণ এই ফ্লাইটে ৬০ থেকে ১০০ জন আরোহী ছিলেন।

অসিম্যান এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট এটিআর-৭২ উড্ডয়নের ২০ মিনিট পর রাডারের সঙ্গে যোগাযোগ হারিয়ে ফেলে। স্থানীয় সময় ভোর পাঁচটায় তেহরান থেকে যাত্রা শুরু করে বিমানটি।

ইরানি সংবাদমাধ্যম আইএসএনএ বলছে, যাত্রীবাহী বিমানটি সেন্ট্রাল ইরানের ইসফাহান প্রদেশের সেমিরন শহরের পার্বত্য অঞ্চলে বিধ্বস্ত হয়েছে।

ইরানের সরকারি সংবাদ সংস্থা ইরান নিউজ নেটওয়ার্ক বলছে, দেশটির জরুরি মেডিক্যাল সার্ভিসের প্রধান পীর হোসেইন কুলিবন্দ বলেছেন, ইয়াসুগ শহর থেকে ১৮৫.৫ কিলোমিটার দূরে ইসফাহান প্রদেশের সেমিরনে বিমানটি বিধ্বস্ত হয়েছে।

 

প্রত্যক্ষদর্শীরা বলছেন, বিমানটি বিধ্বস্ত হওয়ার আগে চারণভূমিতে জরুরি অবতরণের চেষ্টা করেছে। বিমান বিধ্বস্তের স্থানে উদ্ধারকারী দলের সদস্যদের মোতায়েন করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন পীর হোসেইন কুলিবন্দ। তিনি বলেন, বিমানটি প্রত্যন্ত অঞ্চলে বিধ্বস্ত হওয়ায় উদ্ধারকাজ বাধাগ্রস্ত হচ্ছে।

[ad_2]

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here